SL News অর্থনীতি

বিজিএমইএ’র নির্বাচনে রুবানা হকের পূর্ণাঙ্গ প্যানেলে জয়ী

তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রফতানিকারকদের সংগঠনের (বিজিএমইএ) নির্বাচনে সম্মিলিত-ফোরাম পূর্ণ প্যানেলে জয়লাভ করেছে। প্যানেলটির নেতৃত্বে রয়েছেন মোহাম্মদী গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রুবানা হক। তিনি প্রয়াত ঢাকা উত্তর সিটির মেয়র আনিসুল হকের সহধর্মিণী।

উৎসবমুখর পরিবেশে দিনভর ভোটগ্রহণ শেষে শনিবার রাত নয়টা ২০ মিনিটে চূড়ান্ত ফল ঘোষণা করে নির্বাচন পরিচালনা বোর্ড। এর মধ্য দিয়ে রুবানা বিজিএমইএর ইতিহাসে প্রথম নারী সভাপতি হতে চলছেন।

আনুষ্ঠানিক ফল ঘোষণা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিজিএমইএর বর্তমান সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান, নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলামিন, পরিচালনা বোর্ডের সদস্য নিহাদ কবীর, সম্মিলিত ফোরামের টিম লিডার মোহাম্মদী গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রুবানা হক ও স্বাধীনতা পরিষদের টিম লিডার জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।

শনিবার বিকাল সাড়ে পাঁচটায় ভোট গণনা শুরু হয়। এর আগে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলে।

ভোটগ্রহণ শেষে বিজিএমইএ নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের সদস্য ব্যারিস্টার নিহাদ কবীর সাংবাদিকদের জানান, ১৯৫৬ ভোটারের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ১৪৯২ জন। ভোটের হার ৭৬ দশমিক ২৭ শতাংশ।

ডিজিটাল পদ্ধতির ভোট গণনায় চূড়ান্ত ফলে দেখা গেছে, ১৩৯৩ ভোটের মধ্যে সম্মিলিত ফোরামের এম এ রহিম পেয়েছেন ১২৯৫ ভোট, রুবানা হক পেয়েছেন ১২৮০ ও আরশাদ জামাল দিপু পেয়েছেন ১২৬৮ ভোট। প্যানেলটির মধ্যে ২৬ তম পরিচালক হিসেবে সর্বনিম্ন ১১২৪ ভোট পেয়েছেন ফয়সাল সামাদ।

বিপরীতে স্বাধীনতা পরিষদের প্যানেল লিডার জাহাঙ্গীর আলম তার প্যানেল থেকে সর্বোচ্চ ভোট পেয়েছেন ৪২২টি। এই প্যানেল থেকে ৫০০ এর বেশি ভোট পাননি কেউ। মোট ভোট পড়া ১৪৯২টির মধ্যে বাতিল হয়েছে ৯৯টি।

নির্বাচনে জয়ী পরিচালকরা হলেন- রুবানা হক, এস এম মান্নান, ফয়সাল সামাদ, মোহাম্মদ নাছির, আসিফ ইব্রাহিম, আরশাদ জামাল, এম এ রহিম, কে এম রফিকুল ইসলাম, মো. শহীদুল হক, মশিউল আজম, ইনামুল হক খান, মাসুদ কাদের, ইকবাল হামিদ কোরাইশী, নাছির উদ্দিন, কামাল উদ্দিন, সাজ্জাদুর রহমান মৃধা, রেজওয়ান সেলিম, মুনির হোসেন, এ কে এম বদিউল আলম, মিরান আলী, মোহাম্মদ আবদুল মোমেন, মোশারফ হোসেন ঢালী, শিহাব উদ্দোজা চৌধুরী, মহিউদ্দিন রুবেল, শরীফ জহির ও নজরুল ইসলাম।

চট্টগ্রাম অঞ্চলে এই প্যানেলের বিজয়ীরা হলেন- মোহাম্মদ আব্দুস সালাম, এ এম চৌধুরী, এ এম মাহবুব চৌধুরী, এনামুল আজিজ চৌধুরী, মোহাম্মদ আতিক, খন্দকার বেলায়েত হোসেন,অঞ্জন শেখর দাশ, মোহাম্মদ মুছা ও মোহাম্মদ মেরাজ-ই-মোস্তফা।

দুই বছর মেয়াদি (২০১৯-২১) এই নির্বাচনে পরিচালনা পর্ষদের ৩৫টি পরিচালক পদে ৫৩ প্রার্থী অংশ নেন। তবে এর মধ্যে চট্টগ্রাম অঞ্চলের ৯ প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় ২৬ পদে ভোটগ্রহণ হয়। যেখানে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন ৪৪ প্রার্থী। এর মধ্যে সম্মিলিত পরিষদ-ফোরামের ২৬, স্বাধীনতা পরিষদের ১৭ এবং একজন স্বতন্ত্র।

About the author

szaman

Add Comment

Click here to post a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

April 2019
S M T W T F S
« Mar    
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930